অসহায় কৃষকের ধান কেটে বাসায় পৌঁছে দিলো কুড়িগ্রাম জেলা ছাত্রলীগ

285

এজি লাভলু, কুড়িগ্রাম: বৈরী আবহাওয়া ও করোনাভাইরাসে কারণে দেশের মানুষ যখন ঘরবন্দি, ঠিক তখনই শুরু হয়েছে ধান কাটার মৌসুম, এমন পরিস্থিতিতে বেশ বিপাকে পড়েছে কৃষকরা। শ্রমিক সংকট দেখা দিয়েছে। মাঠে ধান পাকলেও সেই ধান কাটার লোক পাওয়া যাচ্ছে না।

এমন সময় গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন বঙ্গবন্ধু কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা এবং কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সভাপতি আল নাহিয়ান খান জয় ও সাধারণ সম্পাদক লেখক ভট্টাচার্য দাদার নির্দেশনায় এ কর্মসূচি সারা বাংলাদেশের মতো কুড়িগ্রাম জেলায় চলমান রয়েছে বলে জানান কুড়িগ্রাম জেলা ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা।

৭ মে (বৃহস্পতিবার) সকাল ১০টা থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত কুড়িগ্রাম পৌরসভার তালতাল গ্রামের এক অসহায় কৃষকের এক বিঘা জমির পাকা ধান কেটে ও বাসায় পৌঁছে দেন ছাত্রলীগের নেতা-কর্মীরা। ধানকাটায় ‍ কুড়িগ্রাম জেলা ছাত্রলীগের অর্ধশতাধিক নেতাকর্মী অংশ নেন। এদের প্রায় সকলেই রোজা রেখেছেন বলে জানা গিয়েছে।

ধানকাটায় নেতৃত্ব দিয়েছেন কুড়িগ্রাম জেলা ছাত্রলীগের ত্যাগী ও জনপ্রিয় ছাত্রলীগ নেতা সাবেক সহ-সভাপতি মো: রাজু আহমেদ।

মো: রাজু আহমেদ বিগত দিনে কুড়িগ্রাম জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি, কুড়িগ্রাম পৌর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এবং কুড়িগ্রাম জেলা ছাত্রলীগের সদস্য হিসাবে তার উপর অর্পিত সাংগঠনিক দায়িত্ব পালন করছেন।

এছাড়াও এই ধানকাটায় অংশ গ্রহণ করছেন কুড়িগ্রাম জেলা ছাত্রলীগের সদ্য সাবেক যুগ্নসাধারণ সম্পাদক জনপ্রিয় ছাত্রলীগ নেতা আল-মুসতাক্বীম বিল্লাহ্ মিশু, সাবেক জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি পরিচ্ছন্ন ছাত্রলীগ নেতা মো: ফিরোজ শাহী, সাবেক জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি হয়রত আলী, সাবেক জেলা ছাত্রলীগের পাঠাগার বিষয় সম্পাদক আল হেলাল রাকিব, সাবেক জেলা ছাত্রলীগের স্কুল ও ছাত্র বিষয়ক সম্পাদক আতিকুর রহমান রাব্বি, সাবেক জেলা ছাত্রলীগের সদস্য আব্দুল্লাহ আল কাফী, কুড়িগ্রাম সরকারি কলেজ শাখা ছাত্রলীগের উদীয়মান ও জনপ্রিয় ছাত্রলীগ নেতা মেহেদী হাসান মিশু, কলেজ ছাত্রলীগের উদীয়মান ছাত্রলীগ নেতা এ আর এম মেহেদী আমীন, মোঃ সোলায়মান গাদ্দাফী। সেই সংঙ্গে আরও উপস্থিত ছিলেন জাহেদুল ইসলাম রুবেল, রাব্বু, রুদ্র, বিপাশ, বাধন, উৎস, আজিজুল, বিদ্যুৎ, সৈকত, হৃদয়, প্রান্ত, সৌরভ, রানা সহ অনেকেই।

SHARE