খালেদার আইনজীবী হওয়ার প্রস্তাব ফিরিয়ে দিলেন ড. কামাল

185

জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলায় দণ্ড পাওয়া বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার আপিল শুনানিতে আইনজীবী হওয়ার প্রস্তাব ফিরিয়ে দিয়েছেন আইন বিশেষজ্ঞ ড. কামাল হোসেন

মঙ্গলবার সকালে রাজধানীর মতিঝিলের টয়োটা টাওয়ারে ড. কামাল হোসেনের ল’চেম্বারে দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, ব্যারিস্টার আবদুর রেজাক খান, আমিনুল ইসলামসহ কয়েকজন আইনজীবী ড. কামাল হোসেনকে খালেদা জিয়ার আপিল শুনানিতে আইনজীবী হওয়ার প্রস্তাব দিলে তিনি তা ফিরিয়ে দেন।

ওই সাক্ষাতের সময় উপস্থিত থাকা গণফোরামের নির্বাহী সভাপতি অ্যাডভোকেট সুব্রত চৌধুরী জানান, ‘বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরসহ কয়েকজন এসেছিলেন স্যারের কাছে (ড. কামাল হোসেন)। স্যার জানিয়েছেন, তিনি এখন ক্রিমিনাল কেস করেন না। এটা তিনি কম বোঝেন, তবে খালেদা জিয়ার প্রতি তার সিমপ্যাথি (সহানুভূতি) থাকবে।’

খালেদা জিয়ার আপিল মামলায় প্যানেল আইনজীবীদের অন্যতম সদস্য ব্যারিস্টার একেএম এহসানুর রহমান বলেন, ‘এই মামলায় ব্যারিস্টার মওদুদ আহমদ, অ্যাডভোকেট এজে মোহাম্মদ আলী, অ্যাডভোকেট জয়নুল আবেদীন, ব্যারিস্টার এএম মাহবুব উদ্দিন খোকন সিনিয়র কাউন্সিল হিসেবে নিযুক্ত আছেন। তবে এরপরেও দল চাইলে যে কোনও আইনজীবীকে নিয়োগ দিতে পারে।’

তবে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক খালেদা জিয়ার আরেক আইনজীবী বাংলা বলেন, ‘মির্জা ফখরুল ইসলামের নেতৃত্বে আমরা ড. কামাল হোসেনের সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছিলাম। আমরা আইনি বিষয়ে তার সঙ্গে পরামর্শ করেছি। তিনি একটি ফাইল দেখবেন বলেও রেখে দিয়েছেন।’

তবে ড. কামাল হোসেন খালেদা জিয়ার আপিল শুনানিতে অংশ নেবেন কিনা তা জানতে চাইলে কোনও উত্তর দিতে রাজি হননি ওই আইনজীবী।

খালেদা জিয়ার আপিল দায়েরকারী ব্যারিস্টার কায়সার কামাল বলেন, ‘আমরা (আইনজীবী) এ মামলার আইনজীবী মাত্র। তাই মামলার শুনানিতে কে বা কারা থাকবেন তা অনেকাংশে দলের নেতাদের ওপর নির্ভর করছে। এ বিষয় দলের মহাসচিব (মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর) ভালো বলতে পারবেন।’

দেশরিভিউ/শিমুল