গণধর্ষনের সমর্থনে মহিলা দলের মানববন্ধন।প্রধান অতিথি মির্জা ফখরুল ইসলাম

2102

।।দেশরিভিউ।। আন্তর্জাতিক নারী দিবসে নারী নির্যাতন ও গণধর্ষনের সমর্থনে মানববন্ধন করেছে জাতীয়তাবাদী মহিলা দল! জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে এই মানববন্ধনে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

হ্যা ঘটনা একদম সত্য। গতকাল(শুক্রবার) মানববন্ধনের অধিকাংশ সময় এই ব্যানার ব্যবহৃত হয়েছে। মহিলা দলের কেন্দ্রীয় নেত্রীরা এমনকি সাবেক মহিলা সাংসদরা বক্তব্য দিয়েছেন এই ব্যানার সামনে রেখে। অনেক নেত্রী মানববন্ধনের ছবি ও নিজেদের সেলফি ফেসবুকে প্রকাশ করতে গিয়ে বিষয়টি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল করেছেন।ফেসবুকে ব্যানারটি দেখেই মূলত সবার চোখ কপালে তোলা অবস্থা।

অনুষ্ঠান চলাকালে ফেসবুকে ছবিটি দেখতে পেয়ে মহিলা দলের সভাপতি/সাধারন সম্পাদককে কয়েকজন দলীয় নেতা ফোন করে বলছেন, ‘আপনারা ধর্ষণের পক্ষে মানববন্ধন করছেন কেন?’  ফোন পাওয়ার পর তড়িৎ গতিতে ব্যানার থেকে ‘বন্ধের’ শব্দটি সাদা কাগজে আড়াল করে দেয়া হয়। এরপরেই অনুষ্ঠানে মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর আসেন এবং ব্যানারটি সামনে রেখে নিজের বক্তব্য দিয়েছেন। অনুষ্টান শেষে সাংবাদিকরা এই বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বেশ খানিকটা উত্তেজিত কন্ঠে বলেন, একটা ভুল নিয়ে সবাই মাতামাতি করি কিন্তু বেগম খালেদা জিয়াকে যে অন্যায়ভাবে মিথ্যা মামলা দিয়ে আটক করে রেখেছে-এটা  গুরুত্বপূর্ণ না।

তবে এ বিষয়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক সরগরম রয়েছে। অনেকে ২০০১ সালের নির্বাচন পরবর্তী সময়ে দেশের সংখ্যালঘু নারীদের উপর বিএনপি জামায়াত ক্যাডারদের পাশবিক নির্যাতনের ইতিহাস তুলে এনে বলছেন, ব্যানারের লিখাটা ভুলবশত হলেও বিএনপি’র চরিত্র অতীতে নারী নির্যাতন ও গণধর্ষনের পক্ষে ছিলো। ২০০১ সাল নির্বাচন পরবর্তী সময়ে ভোট না দেয়ার অপরাধে হাজার হাজার হিন্দু নারী ধর্ষণের শিকার হলেও একটা ঘটনার বিচার হয়নি। বরং বহাল তবিয়তে বিএনপি জামায়াতের পদ পদবী বহন করেছেন দলটির নেতারা।

SHARE