তুরস্কে মার্কিন দূতাবাসে হামলা

25

তুরস্কে মার্কিন যাজককে গ্রেফতার নিয়ে দুই দেশের মধ্যে যখন কূটনৈতিক টানাপড়েন চলছে, ঠিক সেই সময় আঙ্কারায় অবস্থিত মার্কিন দূতাবাসে হামলার ঘটনা ঘটেছে। স্থানীয় সময় সোমবার ভোর ৫টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। তবে কোনো হতাহতের ঘটনা ঘটেনি।

পুলিশের বরাত দিয়ে আলজাজিরা বলেছে, কয়েকজন বন্দুকধারী গাড়িতে করে এসে মার্কিন দূতাবাস ভবন লক্ষ্য করে কয়েক রাউন্ড গুলি ছোড়ে। এতে দূতাবাসের নিরাপত্তা কেবিনের জানালা ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে।

তবে এ ঘটনায় কেউ হতাহত হয়নি। কারণ পবিত্র ঈদুল আজহা উপলক্ষে দূতাবাস বন্ধ রয়েছে।

মার্কিন গণমাধ্যম সিএনএনের তুর্কি অফিস বলছে, পুলিশ হামলাকারীদের খুঁজছে। হামলাকারীরা একটি সাদা গাড়িতে করে পালিয়ে গেছে। চার অথবা পাঁচটি গুলির শব্দ শোনা গেছে বলেও জানিয়েছে সংবাদ মাধ্যমটি।

উল্লেখ্য, মার্কিন যাজক অ্যান্ড্রিউ ব্রুনসনকে তুরস্কে আটক ও বিচার করা নিয়ে ওয়াশিংটন ও আঙ্কারার মধ্যে উত্তেজনা বিরাজ করছে। এই ইস্যুতে মার্কিন সরকার তুরস্কের ওপর অবরোধ আরোপ এবং স্টিল ও অ্যালুমিনিয়াম আমদানিতে দ্বিগুণ শুল্ক আরোপ করেছে। এতে ডলারের তুলনায় তুর্কি মুদ্রা লিরার মূল্য কমে গেছে।

অন্যদিকে, তুরস্কও আমেরিকা থেকে যাত্রীবাহী বিমান, অ্যালকোহল ও তামাক জাতীয় পণ্য আমদানিতে দ্বিগুণ শুল্ক আরোপ করেছে।

এই অবস্থায় মার্কিন দূতাবাসে হামলার ঘটনা দুই দেশের সম্পর্কে আরো উত্তেজনা বাড়াতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে।

উল্লেখ্য, এর আগেও আঙ্কারায় মার্কিন দূতাবাস ও ইস্তাম্বুলে মার্কিন কনস্যুলেট অফিস হামলাকারীদের টার্গেটে পরিণত হয়েছে।

দেশরিভিউ/এস এস

SHARE