‘প্রাণহানি এড়াতে’ রাতভর প্রশাসনের অভিযান: চট্টগ্রামে পাহাড়ধসের শংকা(ভিডিও)

501
অভিযানে অংশ নিয়েছেন চট্টগ্রামের সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্টেট মোঃ তৌহিদুল ইসলাম সহ জেলা প্রশাসনের কর্মকর্তারা

।।দেশরিভিউ, চট্টগ্রাম।।
চট্টগ্রামে ব্যাপক বর্ষনের কারনে পাহাড়ধসের শংকার কথা জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। মধ্যরাতেও চট্টগ্রামের ঝুঁকিপূর্ণ এসব পাহাড়ের চূড়া, পৃষ্ঠ ও পাদদেশ থেকে মানুষকে সরিয়ে আনতে কাজ করেছে চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসনের কর্মকর্তারা। প্রানহানি রুখতে রাতব্যাপি এসব অবৈধ বসতবাড়ি থেকে মানুষকে সরিয়ে আনা হচ্ছে।

এর আগে দিনব্যাপি মাংকিং ও প্রচারনাও চালিয়েছে চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসন। নগরীতে জরুরী ভিত্তিতে ৯টি আশ্রয়কেন্দ্র চালু করে তাতে প্রয়োজনীয় খাবার সরবরাহ করা হয়েছে।

জানা গেছে নগরীর আকবর শাহ থানা এলাকার ১,২,৩ নং ঝিল এলাকায় মধ্যরাতেও অভিযানে নামে জেলা প্রশাসনের কর্মকর্তারা। এসময় আকবর শাহ থানাধীন লেকসিটি, কৈবল্যধাম বিশ্ব কলোনী,মধুশাহ পাহাড়, পলিটেকনিক এলাকা সংলগ্ন পাহাড়ের চূড়া, পৃষ্ঠ ও পাদদেশ থেকে ঘুম থেকে উঠিয়ে লোকজনকে বের করে আনা হয়।

এ বিষয়ে চট্টগ্রামের সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্টেট মোঃ তৌহিদুল ইসলাম দেশরিভিউকে বলেন পাহাড়ে বসবাসকারীদের নিরাপদে আশ্রয়ে নেয়ার জন্য মহানগরী এলাকায় মোট ৯ টি আশ্রয়কেন্দ্র খোলা হয়েছে। আশ্রয়কেন্দ্রে ত্রানসামগ্রী হিসাবে পাঁচ কেজি চাল, এক কেজি ডাল, এক কেজি চিনি, এক কেজি চিড়া, এক প্যাকেট দিয়াশলাই ও এক প্যাকেট মোমবাতি দেয়া হয়েছে। এরপরেও অনেকে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে রাত কাটানোর সংবাদ পেয়ে আমরা অভিযানে এসেছি। পাহাড়ে ভূমিধ্বসের কারনে হতাহতের ঘটনা এড়াতেই আমরা রাতব্যাপী অভিযান অব্যাহত রেখেছি।

SHARE