বর্ষায় ত্বকের যত্নে যেটা অবশ্যই করবেন

166
ছবিতে সেঁওতি খান

।।সায়ান আহমেদ, দেশরিভিউ।।

বর্ষায় আমাদের শরীরে র‍্যাশ চুলকানি হয় বেশি। এ কারনে এই মেঘলা আবহাওয়ায় ত্বকের প্রয়োজন বাড়তি মনোযোগ। আসুন জেনে নেই কীভাবে বর্ষায় ত্বক থাকবে লাস্যময়।

মুখ ধোওয়া আবশ্যক

বর্ষাকাল মানেই কিন্তু বাতাসে আর্দ্রতার পরিমাণ খুব বেড়ে যায়। তাই ঘাম, তেল সারাদিন ধরে মুখে জমতেই থাকে। আর বর্ষাকালে ওই অতিরিক্ত ঘাম, তেল থেকে হওয়া ব্রণর থেকে যদি নিজেকে বাঁচাতে চাও, তা হলে কিন্তু রোজ অন্তত তিনবার মুখ ধোওয়া মাস্ট। পছন্দের ফেসওয়াশ ব্যবহার করতেই পার। তার পর মুখে টোনার লাগাতে ভুলবে না।

অ্যালোভেরা
বর্ষাকালে ত্বকে সংক্রমণ দেখা দিতে পারে। এর জন্য সব থেকে ভাল উপাদান হলো অ্যালোভেরা। অ্যালোভেরা জেল ত্বকে লাগালে ত্বক উজ্জ্বল হবে এবং সংক্রমণের হাত থেকেও মুক্তি পাওয়া যাবে। তবে দোকান থেকে অ্যালোভেরা জেল না কিনে তাজা অ্যালোভেরা কিনে সেই জেল ব্যবহার করলে উপকার অনেক বেশি পাবেন।

নিম
নিমের উপকারিতা বহু প্রাচীন কাল থেকেই প্রচলিত। বিশেষ করে নিমের ওষধি গুণ আপনার ত্বকের জন্য অত্যন্ত ভাল। ব্রণ, পিগমেন্টেশন, চুলকানি কমাতে নিমের জুড়ি নেই। গোসলের সময় পানিতে নিমপাতা ভিজিয়ে রেখে সেই পানিতে গোসল করুন। ত্বকের উজ্জ্বলতা অনেক বেড়ে যাবে।

হলুদ
হলুদ ভেতর থেকে সুন্দর করে তোলে। হলুদের গুণ আমাদের রোগ প্রতিরোধী ক্ষমতা বাড়িয়ে দেয়। দইয়ের সঙ্গে একটু হলুদ মিশিয়ে ফেসপ্যাক হিসেবে ব্যবহার করতে পারেন। দুধের সঙ্গে এক চিমটে হলুদ মিশিয়ে সেটা খেলেও উপকার পাবেন।

আয়ুর্বেদিক চা
হার্বাল চা ত্বকের জন্য খুবই ভাল। গ্রিন টি, লেমনগ্রাস টি, তুলসি চা বর্ষাকালে খুবই উপকারী। শরীর ভেতর থেকে ভাল থাকলে তার প্রভাব আমাদের ত্বকে পড়বে। হার্বাল টি আমাদের শরীর ভেতর থেকে সুস্থ রাখে।

প্রচুর জল খাও
আর হ্যাঁ, জল কিন্তু তোমায় নিয়ম করে খেতেই হবে। রোজ অন্তত ৮-১০ গ্লাস জল খাওয়ার চেষ্টা করো। তোমার স্কিনকে সুন্দর রাখার এটা কিন্তু গোপন টোটকা।

SHARE