বাবা মায়ের দায়িত্ব নিতে সন্তানদের উৎসাহিত করছেন বিরামপুরের ইউএনও

318

।।দেশরিভিউ।। ভিক্ষাবৃত্তি থেকে বিরত রাখার উদ্দেশে ২৯ ভিক্ষুকের সন্তানদের ডেকে পাঠিয়েছেন দিনাজপুরের বিরামপুর উপজেলা নির্বাহ কর্মকর্তা ইউএনও তৌহিদুর রহমান।

ইউএনও তৌহিদুর রহমান এই ২৯ ভিক্ষুকের  সন্তানদের ডেকে তাদের বৃদ্ধ বাবা মায়ের দেখভালের কথা বলেন। তিনি তাদেরকে ফেরত নেয়ার কথা বলেন। ইউএনওর ডাকে সাড়াও দেন ২০ জন ভিক্ষুকের পরিবার। তবে ৯ জনের পরিবারের কোনো সন্ধান পাওয়া যায়নি।

ইউএনও তৌহিদুর রহমান ভিক্ষুকদের আত্মীয়ের সঙ্গে যোগাযোগের বিষয়ে বলেন, ‘আসলে ভিক্ষুকরা অনেক ক্ষেত্রে বাধ্য হয়ে ভিক্ষা করে, অনেকের আবার অভ্যাসগত ভিক্ষা প্রবৃত্তি থাকে। আমি চিন্তা করলাম তাদের সবারই কোনো না কোনো আত্মীয় আছে। অনেকের ছেলে আছে যারা উপার্জনক্ষম। তাদেরকে মোটিভেট করে যদি ভিক্ষা থেকে দূরে রাখা যায়, তাদের যদি বাধ্য করা যায় তাদের পিতা-মাতাদের দেখা-শোনা করার জন্য। এই চিন্তা থেকে এই উদ্যোগ নেয়া।’ বিরামপুরে ৫৫৮ জন ভিক্ষুক রয়েছেন স্থানীয় প্রশাসনের জরিপে উঠে এসেছে।  তৌহিদুর রহমানের কাছে প্রশ্ন ছিল- মাত্র ২০ জনকে আপাতত ভিক্ষাবৃত্তি থেকে বিরত রাখতে পেরেছেন, কিন্তু আরও যে হাজার হাজার মানুষ ভিক্ষাবৃত্তির সাথে জড়িত তাদেরকে কীভাবে নির্বৃত্ত করা সম্ভব?

উত্তরে তিনি সামগ্রিক পুনর্বাসনের কথা উল্লেখ করে বলেন, ‘তাদের যদি থাকার জায়গা না থাকে তাদের থাকার জায়গা করতে হবে, সরকার সে ব্যবস্থা নিয়েছে। যদি তাদের কর্মক্ষমতা না থাকে, তাহলে তাদের সন্তানদের সেই ব্যবস্থা করে দিতে হবে। এভাবেই বহু মানুষকে ভিক্ষা থেকে নির্বৃত্ত করা সম্ভব।’

SHARE