বিশ্বের সেরা ধনী তালিকার তিন নম্বরে উঠেছেন মার্ক জুকারবার্গ

281

।।দেশরিভিউ, আন্তর্জাতিক সংবাদ।।

বেশিরভাগ ব্যবসা প্রতিষ্ঠান যেখানে ক্ষতির পরিমাণ সামলাতে ব্যস্ত। সেখানের লাভের অংক গুণে যেন কুল পাচ্ছে না মার্ক জুকারবার্গের ফেইসবুক। গেল তিন মাসে ৩ হাজার কোটি ডলার আয় করে মার্ক উঠে এসেছেন বিশ্বের সেরা ধনী তালিকার তিন নম্বরে। শুধু তাই না, আসছে দিনে ওরা নিয়ে আসছে নানান বেশ কিছু সেবা।

করোনায় ঘরবন্দী মানুষের সব চেয়ে বড় সম্বল কোনটি? উত্তর যাই হোক না কেন…সত্য হচ্ছে বাবা-মা, ভাই-বোন বা স্ত্রী-সন্তানের চাইতেও মানুষ কিন্তু বেশি সময় কাটাচ্ছে ফেইসবুকে। সামাজিক যোগাযোগের মাধ্যমটি ওতেই ফুলে ফেপে উঠছে। করোনায় বেশিরভাগ ব্যবসা প্রতিষ্ঠান যেখানে হিমশিম খাচ্ছে সেখানে টাকা কামাইয়ে গেল কমাসে সবাইকে ছাপিয়ে যাচ্ছেন ফেইসবুকের প্রতিষ্ঠাতা মার্ক জুকারবার্গ। গেল তিন মাসেই তার আয় বেড়েছে তিন হাজার কোটি ডলার।

ব্লুমবার্গ বিলিয়নারের দেয়া তথ্যমতে… জুকারবার্গের বর্তমান সম্পদের পরিমাণ ৮৯ বিলিয়ন ডলার। ওয়ারেন বাফেট, বার্নার্ড আরনল্টকে এই করোনার সময় পেছনে ঠেলে মার্ক উঠে এসেছেন বিশ্বের শীর্ষ ধনী তালিকার তিন নম্বরে। সামনে শুধু জেফ বেজোস আর বিল গেটস।

মানুষের সাথে মানুষের বন্ধন গড়ার উদ্দেশ্যে যাত্রা শুরু করলেও এখন আর শুধু বন্ধুত্বে থেমে নেই ফেইসবুক। ব্যবসা বাণিজ্যে এর ব্যাপতি ছড়িয়েছে দ্রুত গতিতে। ওটা মাথায় রেখেই করোনায় জুকারবার্গের নির্দেশে ঘর থেকে কাজ করছে ফেইসবুকের কর্মীরা। পন্থাটা বেশ সফল জানিয়ে মার্ক বলছেন শীঘ্রই জাচ্ছে না করোনা, তাই নিয়েছেন লম্বা পরিকল্পনা।

ফেইসবুক প্রতিষ্ঠাতা মার্ক জুকারবার্গ বলেন, দেখুন, করোনা আমাদের সবার জীবন বদলে দিয়েছে।ফেইসবুকের ৯৫ ভাগ মানুষই এখন ঘরে বসে কাজ করছে।পন্থাটা ফেইসবুকে ভালোই কাজে দিচ্ছে। আমরা জানিয়েছি যে চলতি বছরটা তারা চাইলে কর্মক্ষমতা ঠিক রেখে বাসায় বসে কাজ করতে পারবে।

ভিডিও কনফারেন্সে এখন আধিপত্য চলছে জুমের।করোনায় বেশিরভাগ প্রতিষ্ঠানই জুমের ওপর নির্ভরশীল হয়ে পড়ছে। ফেইসবুক জানিয়েছে জুমকে টেক্কা দিতে তারা নিয়ে আসছে মেসেঞ্জার রুমস। সহযোগিতায় থাকবে হোয়াটঅ্যাপ আর ইন্সটাগ্রামও। রুমসে একসাথে অংশ নিতে পারবে ৫০ জনও । এছাড়াও আসছে ই-কমার্স সেবা।

সময়ের সাথে পাল্লা দিয়ে কিভাবে বদলে যেতে হয়, জুকারবার্গের ফেইসবুক করোনার সময়কালেও চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিচ্ছে তা।

SHARE