যোগদান করেই দুর্নীতির অভিযোগে দুই শীর্ষ কর্মকর্তাকে চাকরিচ্যুত করলেন তাপস

212

।।দেশরিভিউ,ঢাকা।।

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ডিএসসিসি) দুই শীর্ষ কর্মকর্তাকে চাকরিচ্যুত করেছেন মেয়র ব্যারিষ্টার শেখ ফজলে নূর তাপস। দুর্নীতির অভিযোগে তাদেরকে চাকরিচ্যুত করা হয়েছে বলে জানা গেছে।

চাকরিচ্যুত দুই কর্মকর্তা হলেন- ডিএসসিসি’র অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী মো. আসাদুজ্জামান ও প্রধান রাজস্ব কর্মকর্তা ইউসুফ আলী সরদার।

রোববার (১৭ মে) মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপস এবং ডিএসসিসির সচিব আকরামুজ্জামান সাক্ষরিত প্রজ্ঞাপন থেকে এ তথ্য জানা যায়।

সিএসসিসির একাধিক সূত্র জানিয়েছে, এ দুই কর্মকর্তার বিরুদ্ধে কমিশন বাণিজ্য, দুর্নীতিসহ নানা অভিযোগ ছিল।

ডিএসসিসি’র নতুন দায়িত্বপ্রাপ্ত সচিব আকরামুজ্জামান সংবাদমাধ্যমকে জানিয়েছেন, ‘উনাদের দুজনকে টারমিনেশন করা হয়েছে। চাকরি থেকে অপসারণ করা হয়েছে। সিটি করপোরেশন আইন মোতাবেক, করপোরেশন যদি মনে করে যে কাউকে চাকরি থেকে বাদ দেওয়া দরকার, সেক্ষেত্রে তিন মাসের বেতন দিয়ে তাকে বিদায় করে দিতে পারে।

এ দুই কর্মকর্তার বিরুদ্ধে অনেক অভিযোগ রয়েছে বলেও জানান তিনি

এদিকে, চাকরিচ্যুত ইউসুফ আলী সরদার সংবাদমাধ্যমকে বলেন, `আমি এখনো বিষয়টি জানি না। তবে কর্পোরেশন যা ভালো মনে করে করতে পারে।

অপরদিকে, আসাদুজ্জামান সংবাদমাধ্যমকে বলেন, `শুনেছি আমাকে চাকরিচ্যুত  করা হয়েছে। তবে কি অভিযোগে করা হয়েছে তা জানি না।

দায়িত্বগ্রহণের পর অফিসের প্রথম দিনেই দুর্নীতির বিরুদ্ধে অবস্থানের ঘোষণা দেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের নবনির্বাচিত মেয়র শেখ ফজলে নূর তাপস।

এর আগে রোববার (১৭ মে) বেলা ১১টায় নগর ভবনে প্রথমদিনে করপোরেশনের বিভিন্ন বিভাগের বিভাগীয় প্রধান এবং আঞ্চলিক নির্বাহী কর্মকর্তাদের সঙ্গে কুশল বিনিময় করেন তাপস। পরে তাদের নিয়ে এক বৈঠকে বসেন। সেসময় তিনি কর্মকর্তাদের নিষ্ঠা, আন্তরিকতা এবং সততার সঙ্গে সেবার ব্রত নিয়ে স্ব স্ব দায়িত্ব পালনের নির্দেশনা দেন।

দক্ষিণ সিটি করপোরেশনকে একটি দুর্নীতিমুক্ত, গর্বের অবস্থায় এবং মর্যাদাশীল প্রতিষ্ঠান হিসেবে গড়ে তুলতে চান বলে নিজের অভিমত ব্যক্ত করেন দক্ষিণের নতুন মেয়র। এজন্য দুর্নীতি বন্ধে এবং দায়িত্ব পালনে কোনরূপ শৈথিল্য বরদাশত করা হবে না বলে কর্মকর্তাদের প্রতি হুঁশিয়ারি উচ্চারণ করে বলেন, এ ধরনের কোন কিছু নজরে আসার সাথে সাথেই কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে এবং যত বড় কর্মকর্তাই হোক কাউকেই ছাড় দেয়া হবে না।

এজন্য যদি কাউকে বিদায় দিতে হয় তাতেও তিনি পিছুপা হবেন না বলে হুঁশিয়ারি দেন তাপস। তারপরই বিকেলে এই দুই কর্মকর্তাকে অপসারণের কথা জানা যায়।

SHARE