শিক্ষকতার আড়ালে ছাত্রী ধর্ষন করা তাদের কাজ; ২০ ছাত্রী ধর্ষনের কথা স্বীকার

135

।।নিজস্ব প্রতিবেদক, দেশরিভিউ।।
নারায়ণগঞ্জের সিদ্ধিরগঞ্জে পাঁচ বছর ধরে ২০ জনের বেশি ছাত্রীকে ব্ল্যাকমেইল করে ধর্ষণ করার অভিযোগে আরিফুল ইসলাম নামে এক শিক্ষককে আটক করেছে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী। আজ বৃহস্পতিবার সিদ্ধিরগঞ্জের মিজমিজি কান্দাপাড়া অক্সফোর্ড হাইস্কুল থেকে তাকে আটক করে পুলিশ ও র‌্যাব।

সিদ্ধিরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা  শাহিন শাহ পারভেজ জানান, সিদ্ধিরগঞ্জের অক্সফোর্ড হাইস্কুলের সহকারী শিক্ষক আরিফুল ইসলাম গত আট বছর ধরে স্কুলটিতে গণিত ও ইংরেজিসহ বিভিন্ন বিষয়ে পাঠদান করতো। এর মধ্যে বিগত পাঁচ বছর ধরে বিভিন্ন সময় আরিফুল ইসলাম অসংখ্য ছাত্রীকে ব্লাকমেইল করে আপত্তিকর ছবি তুলে ধর্ষণ করতো।

পুলিশের এই কর্মকর্তা আরও জানান, গত তিনদিন যাবত তার অনৈতিক কর্মকাণ্ডগুলো এলাকায় প্রচার হতে থাকে। পরবর্তীতে বৃহস্পতিবার বেলা ১১টায় বিক্ষুব্ধ এলাকাবাসী ওই স্কুলে গেলে আরিফুল ইসলাম তার মোবাইলে থাকা আপত্তিকর ছবিগুলো মুছে ফেলে। পরবর্তীতে এলাকাবাসী ওই মোবাইল উদ্ধার করে এলাকার একটি মোবাইলের দোকানে নিয়ে গিয়ে সফটওয়ারের মাধ্যমে ছবিগুলো উদ্ধার করে। এ সময় বিক্ষুব্ধ এলাকাবাসী ক্ষোভে ফেটে পড়ে। পরে তারা ঐক্যবদ্ধ হয়ে ওই স্কুলে হামলা চালায়। এ সময় স্কুলের ওই শিক্ষক আরিফুল ইসলাম ও প্রধান শিক্ষক রফিকুল ইসলাম জুলফিকারকে গণধোলাই দেয়া হয়।

SHARE