সিঁদুর খেলার প্রহর গুনছে নারীরা

313

সায়ান আহমেদ, বিনোদন ডেস্ক:
হিন্দু ধর্মের অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ উৎসব শারদীয় দুর্গাপূজা। কয়েক দিনব্যাপী এই পূজায় পালিত হয় নানা রকমের অনুষ্ঠান। এর মধ্যে অন্যতম গুরুত্বপূর্ণ অনুষ্ঠান হলো “সিঁদুর খেলা”।

এই সিঁদুর খেলার দেখা মেলে শারদীয় উৎসবের বিজয়া দশমীর দিনে। সারা বছর সিঁদুর খেলার অপেক্ষায় থাকেন অনেক নারী। এদিন দেবীকে সিদুর পড়িয়ে বিদায় জানায়। দেবীকে সিদুর দেয়ার পরে নারীরা নিজেদের মধ্যে একে অপরকে সিদুর পড়িয়ে দেয়।

সিঁদুর খেলা হিন্দুদের রঙ খেলার থেকে কিছুটা ভিন্ন বৈশিষ্ট্য ধারণ করে। এর প্রধান বৈশিষ্ট্য হলো এই খেলা কেবল বিবাহিত নারীদের মধ্যে সীমাবদ্ধ। এই বৈশিষ্ট্যের কারণ হলো সিঁদুর বিবাহিত নারীদের প্রতীক। তাই অবিবাহিত নারী ও বিধবাদের জন্য এ খেলার ক্ষেত্রে বিশেষ নিষেধ রয়েছে।

সিঁদুর খেলার অপেক্ষায়। মডেল: জারা তাসনিম। ফটো: সায়ান আহমেদ

বর্তমানে পূজা মানে আধুনিকতা আর আভিজাত্যের মেলবন্ধন। তাই সিঁদুর খেলায় অংশ নিতে অপেক্ষার পর প্রস্তুতি ও আয়োজনও হয় অনেক। সিঁদুর খেলার জন্য এদিন আভিজাত্যের শাড়ি পরার ঝোঁকও বেশি। বাড়ি থেকে মন্ডপে যাওয়ার আগে তাই পূজার্তীরা রঙিন শাড়িতে সেজে সিথিতে সিঁদুর লাগাতে ভুল করেন না।

বিবাহিত নারীরা সিঁদুর, পান ও মিষ্টি হাতে দুর্গা মাকে সিঁদুর ছোঁয়ানোর জন্য পূজা মন্ডপে যান। তবে সিঁদুর মাখার রীতি অনেক সময় দশমী ঘরে পালন করা হলেও অনেকে আবার নিজেদের ঘরেই খেলে থাকেন।

SHARE