রবিবার, মার্চ ৩, ২০২৪

বাংলাদেশে ডলারের পরিবর্তে নিজেদের মুদ্রায় বাণিজ্য করতে চায় চীন

বাংলাদেশে ডলারের পরিবর্তে নিজেদের মুদ্রায় ব্যবসা-বাণিজ্য করতে আগ্রহ প্রকাশ করেছে চীন। এ বিষয়ে ঢাকার সঙ্গে আলোচনা করতে আগ্রহের বিষয়টি উত্থাপন করেছে বেইজিং।মঙ্গলবার (৩০ জানুয়ারি) রাজধানীর শেরেবাংলা নগরে পরিকল্পনামন্ত্রী আবদুস সালামের সঙ্গে বৈঠক শেষে ঢাকায় নিযুক্ত চীনা রাষ্ট্রদূত ইয়াও ওয়েন সাংবাদিকদের এ কথা জানান।

ইয়াও ওয়েন জানান, ডলারের সমস্যাটি বর্তমানে বিশ্বব্যাপী বিরাজমান। যুক্তরাষ্ট্রের মুদ্রানীতির কারণে ডলারের দাম ওঠানামা করছে। এতে আমরাও ডলার সংকটে ভুগছি। বিশ্বব্যাপী সমস্যা আমাদেরও প্রভাবিত করেছে। এ জন্য বাংলাদেশের কাছে বাণিজ্য ও বিনিয়োগ বাড়াতে আমাদের মুদ্রায় লেনদেনের প্রস্তাব দিয়েছি। বাংলাদেশ সেটি বিবেচনা করছে।

আমরা প্রত্যাশা করি, নিজেদের মুদ্রায় ব্যবসা-বাণিজ্য করার ক্ষেত্রে আমরা বাংলাদেশের সঙ্গে কাজ করব। কীভাবে নিজেদের মুদ্রায় আমরা এই কাজ করব, তা নিয়ে আলোচনা করার বিষয়টি আমরা বাংলাদেশ সরকারের কাছে উত্থাপন করেছি, বলেন চীনা রাষ্ট্রদূত।

তিনি বলেন, বিশ্বের দ্বিতীয় বৃহত্তম অর্থনীতির দেশ চীন এখন বেশ কয়েকটি দেশের সঙ্গে নিজস্ব মুদ্রা ইউয়ানে বাণিজ্য করছে। ইউয়ান যাতে আন্তর্জাতিক বাণিজ্যে আরও বেশি ব্যবহার করা হয়, দেশটি অনেক দিন ধরে সেই চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। বিশ্ব বাণিজ্যে মার্কিন মুদ্রা ডলারের আধিপত্য কমাতে যেসব দেশ চেষ্টা করছে, চীন তাদের অন্যতম।

বৈঠকে পঞ্চবার্ষিকী পরিকল্পনা নিয়ে বাংলাদেশ ও চীনের মধ্যে সহযোগিতার বিষয়ে চীনা রাষ্ট্রদূত বলেন, পঞ্চবার্ষিকী পরিকল্পনা নিয়ে দুই দেশের মধ্যে সহযোগিতার বড় সুযোগ আছে। চীনে এখন ১৪তম পঞ্চবার্ষিকী পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করা হচ্ছে। বাংলাদেশে অষ্টম পঞ্চবার্ষিকী পরিকল্পনার বাস্তবায়ন হচ্ছে। চীনে ন্যাশনাল ডেভেলপমেন্ট অ্যান্ড রিফর্মস কমিটি আছে, যা বাংলাদেশের পরিকল্পনা কমিশনের মতো। এই দুই কমিটি একসঙ্গে কাজ করতে পারে। আমরা দুই দেশের সহযোগিতার সম্পর্কের নতুন মাত্রা খুঁজছি।

সর্বশেষ