আওয়ামী লীগকে ৯-৪ ব্যবধানে হারালো বিএনপি

120


বগুড়া জেলা অ্যাডভোকেটস্ বার সমিতির নির্বাচনে ১৩টি পদের মধ্যে সাধারণ সম্পাদকসহ ৯টি পদে জয় পেয়েছে বিএনপি সমর্থিত জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ঐক্য প্যানেল। অন্যদিকে সভাপতিসহ ৪টি পদে জয় পেয়েছে আওয়ামী লীগ সমর্থিত বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদ।

শুক্রবার (২৬ নভেম্বর) অনুষ্ঠিত নির্বাচন শেষে রাত ১১টা ৩০ মিনিটে ফলাফল ঘোষণা করেন নির্বাচন পরিচালনা কমিটির চেয়ারম্যান অ্যাডভোকেট বিনয় কুমার ঘোষ রজত। নির্বাচনে সভাপতি পদে নির্বাচিত হয়েছেন বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদের প্রার্থী ও বগুড়ার পাবলিক প্রসিকিউটর অ্যাডভোকেট আব্দুল মতিন। তিনি পেয়েছেন ৩৬৫ ভোট। ওই পদে তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী জাতীয়তাবাদী আইনজীবী প্যানেলের অ্যাডভোকেট এ কে এম মাহবুবর রহমান পেয়েছেন ৩৩৬ ভোট। সাধারণ সম্পাদক পদে জাতীয়তাবাদী আইনজীবী প্যানেলের প্রার্থী অ্যাডভোকেট আব্দুল বাছেদ ৩৪৬ ভোট পেয়ে বিজয়ী হয়েছেন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদের প্রার্থী অ্যাডভোকেট এ এইচ এম গোলাম রব্বানী খান রোমান পেয়েছেন ২৭৫ ভোট। নির্বাচনে অপর প্যানেল গণতান্ত্রিক আইনজীবী সমিতির পক্ষ থেকে অপর একটি প্যানেল থেকে ৬ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করলেও তারা কেউ নির্বাচিত হতে পারেননি।

ঘোষিত ফলাফল অনুযায়ী জাতীয়তাবাদী আইনজীবী ঐক্য প্যানেলের আরো যে ৮ জন নির্বাচিত হয়েছেন তারা হলেন- সহ-সভাপতির দুটি পদে যথাক্রমে অ্যাডভোকেট আজবাহার আলী (৩৫৭ ভোট) ও অ্যাডভোকেট সাখাওয়াৎ হোসেন মল্লিক (৩৫০), যুগ্ম সম্পাদকের দুটি পদের একটিতে এনামুল হক পান্না (৩৫৬), ম্যাগাজিন, ক্রীড়া ও সাংস্কৃতিক সম্পাদক পদে অ্যাডভোকেট গোলাম মোস্তফা মজনু (২৭৮) ও ৪টি সদস্য পদে যথাক্রমে অ্যাডভোকেট নুর-ই-আজম (৪০৫), অ্যাডভোকেট মিজানুর রহমান (৪০৪), অ্যাডভোকেট আব্দুস সালাম (৪০২) ও অ্যাডভোকেট শিপন খাতুন (৩৮১)।
বঙ্গবন্ধু আওয়ামী আইনজীবী পরিষদ থেকে সভাপতি ছাড়াও আরো যে তিনজন নির্বাচিত হয়েছেন তারা হলেন- যুগ্ম সম্পাদক পদে অ্যাডভোকেট রিয়াজুল জান্নাত প্রিন্স (৩৬৩) এবং লাইব্রেরি ও সমাজ কল্যাণ সম্পাদক পদে অ্যাডভোকেট আজিজুল হক ফিরোজ (৩৭৯) এবং সদস্য পদে অ্যাডভোকেট নূরে জান্নাত রূপা (৪৩২)। বগুড়া জেলা অ্যাডভোকেটস্ বার সমিতির গঠনতন্ত্র অনুযায়ী প্রতি বছর নভেম্বরের শেষ শুক্রবার নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এবার সকাল ৭টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত অনুষ্ঠিত নির্বাচনে ৭৭৮ জন ভোটারের মধ্যে ৭৪৯ জন ভোট প্রদান করেছেন।

SHARE