শনিবার, এপ্রিল ১৩, ২০২৪

বন্ধুর কাছে চাকরি চেয়ে হতাশ হয়েছিলেন যুবরাজ

আইপিএলের দল গুজরাট টাইটান্সের প্রধান কোচ আশিস নেহরার কাছে চাকরির চেয়েও পাননি যুবরাজ সিং। ভারতের সর্বকালের অন্যতম সেরা অলরাউন্ডার এমনই দাবি করেছেন। তিনি জানান, অনুরোধ করা সত্ত্বেও তার ঘনিষ্ঠ বন্ধু তাকে চাকরিতে নেয়নি, দলের সঙ্গে যুক্ত করেনি। পাশাপাশি যুবরাজ ইঙ্গিত দিয়েছেন যে তিনি ভবিষ্যতে যে কোনো একটি আইপিএল দলের মেন্টর হতে চান।

যুবরাজ নিজে এক সময় পাঞ্জাব কিংস (আগে নাম কিংস ইলেভেন পাঞ্জাব), সাহারা পুনে ওয়ারিয়র্স, রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালুরু এবং মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের মতো ফ্র্যাঞ্চাইজির হয়ে খেলেছেন। বাঁহাতি ব্যাটসম্যান ১৩২টি আইপিএল ম্যাচে ২৭৫০ রান করেছেন। তার সর্বোচ্চ স্কোর ছিল ৮৩ রান।

এক সাক্ষাৎকারে যুবরাজ বলেছেন, ‘আমি আশিস নেহরার কাছে চাকরি চেয়েছিলাম, কিন্তু তিনি তা প্রত্যাখ্যান করেছিলেন, তাই দেখা যাক আমি আর কোথায় দায়িত্ব পেতে পারি কিনা। তবে আপাতত আমাকে ভারসাম্য রাখতে হবে। দেখা যাক আমি কি সুযোগ পাই, কিন্তু এই মুহূর্তে আমার অগ্রাধিকার আমার সন্তান। একবার সে স্কুল শুরু করলে আমি আরও সময় পাব। তাই কোচিং বেছে নিতে পারি। আমি যুবকদের সঙ্গে কাজ করতে পছন্দ করি, বিশেষ করে আমার রাজ্যের ছেলেদের সঙ্গে এবং আমি মনে করি মেন্টরিং এমন একটি জিনিস যা আমি করতে চাই এবং অবশ্যই আইপিএল দলের একটির অংশ হতে চাই, আমি অবশ্যই এটি নিয়ে ভাবছি।’

দুইবারের ভারতীয় বিশ্বকাপ চ্যাম্পিয়ন দলের নায়ক যুবরাজ সিংও ভবিষ্যতে টিম ইন্ডিয়ার মেন্টর হওয়ার আগ্রহ দেখিয়েছিলেন। গত ১০ বছর ধরে আইসিসি ট্রফির জন্য অপেক্ষা করছে ভারত। ২০১৩ সালে চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি জেতার পর, টিম ইন্ডিয়া দুবার বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপের ফাইনাল এবং ২০২৩ ওয়ানডে বিশ্বকাপের শিরোপা ম্যাচও হেরেছিল। শেষ আইসিসি ট্রফি (চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি) ভারত জিতেছিল ধোনির নেতৃত্বে ইংল্যান্ডে। তবে এখন দেখার বাইশ গজের মূল স্রোতে যুবরাজ ফিরে আসেন কিনা।

সর্বশেষ