বুধবার, এপ্রিল ১৭, ২০২৪

২০ বিশ্ববিদ্যালয়ে স্থাপন হবে রিসার্চ অ্যান্ড ইনোভেশন সেন্টার: পলক

ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেছেন, স্মার্ট কর্মসংস্থানের সুযোগ বৃদ্ধি করতে আমরা ২০ বিশ্ববিদ্যালয়ে রিসার্চ অ্যান্ড ইনোভেশন সেন্টার স্থাপন করব। এক্ষেত্রে সুইডেন সরকার ও বেসরকারি প্রতিষ্ঠানগুলো সহযোগিতা ও মেন্টরিং সাপোর্ট দেবে। বুধবার (৭ ফেব্রুয়ারি) সুইডেনের রাষ্ট্রদূত আলেকজান্দ্রা বার্গ ফন লিন্ডের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাৎ শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে মতবিনিময় সভায় তিনি এসব কথা বলেন।
প্রতিমন্ত্রী বলেন, ৫জি প্রযুক্তির সম্প্রসারণ ও স্টার্ট-আপ কোলাবোরেশনের জন্য বাংলাদেশ-সুইডেন আইটি পোর্টাল তৈরির বিষয়ে আলোচনা হয়েছে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ডিজিটাল বাংলাদেশ রূপকল্প বাস্তবায়নে সুইডেনের সরকারি ও বেসরকারি অনেক বিনিয়োগ ও সহযোগিতা ছিল এবং সেই সহযোগিতা তারা অব্যাহত রাখবে। পাশাপাশি আগামী ১৭ বছরে স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে আমাদের লক্ষ্যগুলো বাস্তবায়নেও সুইডেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকারের সঙ্গে কাজ করবে বলেও জানান তিনি।

পলক বলেন, সমৃদ্ধ স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণের লক্ষ্যে আমরা তিনটা বিশেষ দিকে গুরুত্ব দিচ্ছি। প্রথমত, সুইডেনে বাংলাদেশের আইসিটি ও টেলিকম এক্সপোর্ট বৃদ্ধি করা। দ্বিতীয়ত, আইসিটি ও টেলিকমসহ বাংলাদেশের সম্ভাবনাময় খাতে সুইডেনের সরকারি ও বেসরকারি বিনিয়োগ বৃদ্ধি করার জন্য বিনিয়োগবান্ধব একটা ইকোসিস্টেম তৈরি করা। তৃতীয়ত, তরুণ প্রজন্মকে দক্ষ মানবসম্পদে রূপান্তর করার জন্য বিশ্ববিদ্যালয়ে রিসার্চ অ্যান্ড ইনোভেশন সেন্টার স্থাপন করা।

আগামী ২০৪১ সালের মধ্যে স্মার্ট বাংলাদেশ রূপকল্প বাস্তবায়নে সুইডেন বাংলাদেশের পাশে থেকে একসঙ্গে কাজ করবে বলেও উল্লেখ করেন পলক।

সর্বশেষ