মাকে কুপিয়ে হত্যা করেছে পাষান সন্তান

119


চাঁদপুরের ফরিদগঞ্জে হতভাগ্য এক মাকে কুপিয়ে হত্যা করেছেন ছেলে মমিন দেওয়ান (৪২)। নিহতের নাম মনোয়ারা বেগমকে (৬৫)।

বুধবার (২৭ অক্টোবর) সকালে উপজেলার পশ্চিম বড়ালী দেওয়ান বাড়িতে গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, মমিন মানসিক প্রতিবন্ধী। এ ঘটনায় ছেলে মমিনকে আটক করেছে পুলিশ। নিহত মনোয়ারা ওই বাড়ির মৃত আবদুল হাশেমের স্ত্রী।

পুলিশ জানায়, মানসিক রোগী মমিন এর আগে একটি হত্যা মামলায় জেলেহাজতে ছিলেন। তিন মাস আগে তিনি জামিন পান। তারপর থেকে তার মা ও ভাগনিকে মারধর করাসহ মেরে ফেলার হুমকি দিতে থাকেন।

স্থানীয়রা জানান, বুধবার ভোরে মমিন হঠাৎ উত্তেজিত হয়ে ঘরে থাকা দা দিয়ে কুপিয়ে তিনি তার মাকে হত্যা করেন এবং বাড়ি থেকে পালিয়ে যান। পরে তাকে আটক করতে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুকে একটি পোস্ট করেন ফরিদগঞ্জ থানার ওসি। পোস্ট করার কিছুক্ষণ পরই পৌর এলাকার ভাটেরগাঁও গ্রামে তাকে দেখতে পেয়ে স্থানীয় জনতা পুলিশকে খবর দেয়। পরে পুলিশ তাকে আটক করে।

ফরিদগঞ্জ থানার ওসি মোহাম্মদ শহীদ হোসেন জানান, মনোয়ারা বেগমের মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য চাঁদপুর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।

SHARE